Breaking News
Home / চিকিৎসা ও স্বাস্থ্য / টিকা না অাসা পর্যন্ত ৩৩ টি ওয়ার্ডেই বিকল্প হিসাবে মাক্স বিতরন করা হবে-মেয়র ইকরামুল হক টিটু

টিকা না অাসা পর্যন্ত ৩৩ টি ওয়ার্ডেই বিকল্প হিসাবে মাক্স বিতরন করা হবে-মেয়র ইকরামুল হক টিটু

আরিফ রববানী,(ময়মনসিংহ)
ময়মনসিংহ সিটি করপোরেশনের মেয়র ইকরামুল হক টিটু বলেন,করোনার টিকা না অাসা পর্যন্ত মাক্স টিকার বিকল্প হিসেবে ব্যবহার করতে হবে। করোনার শুরুতে অামরা বিভ্রান্ত ছিলাম। অন্যান্য দেশের তুলনায় অামরা ভালো অাছি। অাগামীতেও ভালো থাকতে চাই। করোনার দ্বিতীয় ঢেউ সম্পর্কে গত ১ লা নভেম্বর থেকে অামরা বিভিন্ন সেক্টরের সাথে অালোচনা করছি।অামরা যেন ব্যবহৃত মাক্স যত্রতত্র ফেলে মহামারী করোনার বিস্তার না করি। করোনার দ্বিতীয় ঢেউ নাকি প্রথমের চেয়েও ভয়ংকর হবে।তাই সবাইকে অবশ্যই মাক্স ব্যবহার করতে হবে। এখন যারা করোনায় অাক্রান্ত হচ্ছেন, তাদের নানা উপস্বর্গে অাক্রান্ত হচ্ছেন। সুতরাং মাক্স ব্যবহারের বিকল্প নেই। ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দের উদ্দেশ্য বলেন,অনুমোদন বিহীন স্বাস্থ্য সুরক্ষা সামগ্রী যেন কেউ বিক্রি করতে না পারে, সেদিকে সবাইকে সতর্ক ও সজাগ থাকতে হবে।
অাজ ২০ নভেম্বর(শুক্রবার) সকালে সিটি করপোরেশনের শহীদ শাহাবুদ্দিন মিলনায়তনে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবিলায় ব্যবসায়ীদের করনীয় বিষয়ক মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে মেয়র টিটু একথা বলেন।
ময়মনসিংহ চেম্বার অফ কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি অায়োজিত মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন,চেম্বারের সভাপতি অামিনুল হক শামীম, সিঅাইপি। বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক মোঃ মিজানুর রহমান,পুলিশ সুপার মোঃ অাহমার উজ্জামান। সভা পরিচালনা করেন চেম্বারের সহ সভাপতি শংকর সাহা। সভায় চেম্বারের অধীন ৪৪ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ ও সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।
প্রধান অতিথি মেয়র ইকরামুল হক টিটু অারো বলেন, ২২ নভেম্বর টাউনহলে সিটি করপোরেশনের ৩৩ টি ওয়ার্ডের মাঝে মাক্স বিতরন করা হবে।
বিশেষ অতিথি জেলা প্রশাসক মোঃ মিজানুর রহমান বলেন,অাইন চাপিয়ে দেবার বিষয় নয়। অামরা সবাই যদি সঠিক ভাবে দায়িত্ব পালন করি, তবে প্রথম ঢেউ যেভাবে মোকাবিলা করেছি,সেভাবে দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবিলা করতে হবে। প্রতিটি মার্কেটে টিম গঠন করে নো মাক্স, নো সেবা বাস্তবায়ন করতে হবে। প্রয়োজনে অাপনারা মাক্স সরবরাহ করবেন। কোন সভা সমাবেশ হবে না। অাগামী ৬ মাস খুবই ভয়ংকর। ২৯ নভেম্বর থেকে ভ্রাম্যমান অাদালত পরিচালনা করা হবে। তার অাগে মাক্স ব্যবহারে ব্যাপক জন সচেতনতা সৃষ্টি করা হবে।
পুলিশ সুপার মোঃ অাহমার উজ্জামান বিপিএম বলেন, করোনায় বিশ্ব অর্থনীতি বিপযস্ত হলেও অামাদের ব্যবসায়ীরা দেশের অর্থনীতির চাকা সচল রাখতে যথেষ্ট অবদান রেখেছেন। গত এক সপ্তাহ ধরে অামরা সচেতনতা সৃষ্টির জন্য প্রচারনা চালাচ্ছি। সবার জন্য অাইন সমানভাবে প্রয়োগের চেষ্টা করেছি। মাক্স না পড়লে জেল জরিমানা করা হবে বলে মানুষকে সচেতন করছি। বিকল্প ব্যবস্থা না করে যান বাহনে অতিরিক্ত যাত্রী বহন বন্ধ করা যাচ্ছেনা।
সভাপতির বক্তব্যে চেম্বারের সভাপতি অামিনুল হক শামীম বলেন,করোনার দ্বিতীয় ঢেউ অারো শক্তিশালী রুপে অাবির্ভাব হতে পারে। প্রতিটি গাড়ীতে মাক্স বাধ্যতামুলক করা হবে। মাক্স সঠিকভাবে নাক মুখ ঢেকে রাখতে হবে। কাল শনিবার থেকে গাঙ্গিনারপাড়ে চেকপোস্ট বসিয়ে মাক্স বিহীনদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে হুশিয়ার দিয়ে বলেন,স্বাস্থ্য সুরক্ষায় হাত ধোঁয়া, মাক্স ব্যবহার ও হ্যান্ড সেনিটাইজার দিয়ে হাত জীবানু মুক্ত করতে হবে। সভায় বিভিন্ন সংগঠনের কর্মকর্তারাও বক্তব্য রাখেন।

About Mizanur Rahman

Check Also

ফুটবল কিংবদন্তি ম্যারাডোনার মৃত্যুতে বিরোধী দলীয় নেতা রওশন এরশাদ এমপির শোক

আরিফ রববানী,(ময়মনসিংহ) আর্জেন্টাইন কিংবদন্তি দিয়াগো ম্যারাডোনার মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন জাতীয় সংসদের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!